সারাদেশে দুদক এনফোর্সমেন্টের ৯ অভিযান - SHOMOYSANGBAD.COM

শিরোনাম

Tuesday, January 14, 2020

সারাদেশে দুদক এনফোর্সমেন্টের ৯ অভিযান

ডেস্ক সংবাদ:
দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) এনফোর্সমেন্ট ইউনিট থেকে ১৪ জানুয়ারি সারাদেশে মোট ৯টি অভিযোগের বিষয়ে পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। দুদক অভিযোগ কেন্দ্রে (টোল ফ্রি হটলাইন- ১০৬) আগত অভিযোগের প্রেক্ষিতে সমন্বিত জেলা কার্যালয়, রংপুরের সহকারী পরিচালক মো. জাহাঙ্গীর আলমের নেতৃত্বে আজ এ অভিযান পরিচালিত হয়।

টিম তথ্য সংগ্রহ সাপেক্ষে জানতে পারে, গাইবান্ধা জেলার পলাশবাড়ী উপজেলায় সড়ক প্রশস্তকরণ প্রকল্পের জন্য ১০৩ কোটি টাকা বরাদ্দ প্রদান করা হয়, যার সম্পাদন প্রক্রিয়া ৩টি প্যাকেজের মাধ্যমে চলমান। টিম সরেজমিনে ব্রিজ নির্মাণের কাজ পর্যবেক্ষণ করে এবং কাজের গুণগত মান যথাযথ হয়েছে কি না, তা যাচাইয়ের জন্য বিশেষজ্ঞ মতামত গ্রহণের প্রক্রিয়া শুরু করে। মতামত প্রাপ্তিসাপেক্ষে কমিশনে বিস্তারিত প্রতিবেদন উপস্থাপন করবে অভিযান পরিচালনাকারী টিম।

ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল চত্বরে বৃক্ষরোপণে অনিয়মের অভিযোগে অভিযান পরিচালনা করেছে দুদক। গণপূর্ত বিভাগের আরবরিকালচার ইউনিট থেকে পরিচালিত “ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল স্থাপন” শীর্ষক প্রকল্পের বৃক্ষরোপণে বিপুল পরিমাণ টাকা আত্মসাৎ করা হয়েছে, এরূপ অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে প্রধান কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক শাহরিয়ার জামিল ও উপসহকারী পরিচালক মোছা. ফাহমিদা আকতারের সমন্বয়ে গঠিত একটি টিম আজ এ অভিযান পরিচালনা করে। সরেজমিন অভিযানে টিম উল্লিখিত প্রকল্পের টেন্ডার সংক্রান্ত যাবতীয় তথ্যাবলী সংগ্রহ করে। তথ্যাবলী বিশ্লেষণপূর্বক টিম কমিশনে পূর্ণাঙ্গ প্রতিবেদন উপস্থাপন করবে।

এছাড়াও চট্টগ্রামে সরকারি জমির ওপর বহুতল ভবন নির্মাণের অভিযোগে এবং মৌলভীবাজারে অবকাঠামো উন্নয়ন প্রকল্পের টেন্ডার প্রক্রিয়ায় অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগে সমন্বিত জেলা কার্যালয় চট্টগ্রাম-১ এবং সমন্বিত জেলা কার্যালয়, হবিগঞ্জ থেকে ২টি পৃথক অভিযান পরিচালিত হয়।

অবৈধভাবে নদী দখল করে পরিবেশ দূষণের অভিযোগে প্রতিবন্ধী পুনর্বাসন কল্যাণ সমিতির নামে দলিল প্রতি অর্থ আদায়পূর্বক আত্মসাতের অভিযোগে এবং অবৈধভাবে ইটভাটা তৈরি করে পরিবেশ দূষণের অভিযোগে সাতক্ষীরা, কিশোরগঞ্জ ও বান্দরবান জেলার জেলা প্রশাসক বরাবর এবং ঘর নির্মাণে অবৈধভাবে অর্থ দাবির অভিযোগের বিষয়ে কমিশনকে অবহিত করার জন্য প্রধান বন সংরক্ষককে চিঠি দিয়েছে দুদক এনফোর্সমেন্ট ইউনিট।

No comments:

Post a Comment