ফরিদপুর জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতির ইন্তেকাল - SHOMOYSANGBAD.COM

শিরোনাম

Thursday, September 12, 2019

ফরিদপুর জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতির ইন্তেকাল


সময় সংবাদ ডেস্ক-
ফরিদপুর জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি ও জেলা পরিষদের সাবেক প্রশাসক কাজী জায়নুল আবেদিন ইন্তেকাল করেছেন। ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন। 
বুধবার দিবাগত রাত ২টা ৩৫ মিনিটের দিকে তিনি ঢাকায় ইন্তেকাল করেন। তিনি বাধ্যক্যজনিত অসুস্থতায় ভুগছিলেন। 

মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিলো প্রায় ৯১ বছর। তিনি স্ত্রী, ৪ মেয়ে ও ৩ ছেলে রেখে গেছেন। 
মরহুমের পুত্র ডা. কাজী রফিকুল ইসলাম জানান, বৃহস্পতিবার বাদ জোহর ফরিদপুর উচ্চবিদ্যালয়ের মাঠে জানাযা শেষে তাকে আলীপুর গোরস্থানে দাফন করা হবে।

তার মৃত্যুতে গভীর শোক জানিয়েছেন, ফরিদপুর সদর আসনের এমপি ও স্থানীয় সরকার বিভাগের সংসদীয় কমিটির সভাপতি ইঞ্জিনিয়ার খন্দকার মোশাররফ হোসেন, ফরিদপুর-২ আসনের এমপি ও সংসদ উপনেতা সৈয়দা সাজেদা চৌধুরী, ফরিদপুর-১ আসনের এমপি মনজুর হোসেন বুলবুল, আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য কাজী জাফরউল্লাহ, এফবিসিসিআইয়ের সাবেক সভাপদি একে আজাদ, কৃষক লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সভাপতি আরিফুল রহমান দোলন, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি লিয়াকত সিকদার, ফরিদপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি মো. ইমতিয়াজ হাসান রুবেল, ফরিদপুর চেম্বার অব কমার্সের সভাপতি সিদ্দিকুর রহমানসহ জেলা আওয়ামী লীগ ও বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন।

ফরিদপুরের প্রবীণ এই শিক্ষক কাজী জায়নুল আবেদিন ১৯৫৬ সালে ফরিদপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে শিক্ষক হিসেবে যোগ দিয়ে ১৯৭৪ সালে প্রধান শিক্ষক হন। ২০০২ সালে শিক্ষকতা পেশা থেকে অবসর নেন। ২০০৫ সালে জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনে তিনি সভাপতি নির্বাচিত হন এবং ২০১৬ সাল পর্যন্ত এই পদে দ্বায়িত্ব পালন করেন। এরপর তিনি পাঁচ বছরের মেয়াদে ফরিদপুর জেলা পরিষদের প্রশাসক নিযুক্ত হন। শহরের ভাটি লক্ষিপুর মহল্লার বাসভবনে তিনি বসবাস করতেন। সদর উপজেলার চরমাধবদিয়া ইউনিয়নের চর বালুধুম গ্রামে একটি সাধারণ কৃষক পরিবারে ১৯২৮ সালে তিনি জন্ম গ্রহণ করেন।

No comments:

Post a Comment